♥♥ tOmAr AmR pReM aMi AjO bUjHiNi ♥♥

অবুঝ বাস্তবতা:- আমি জানি আড্ডার বন্ধু আর আত্মার বন্ধুর হিসেব তুমি কষো না । জীবনে উপভোগটাই তোমার কাছে মুখ্য । যখন যার সাথে পার , উপভোগ করো । কিন্তু জানো , মাঝে মাঝে উপভোগের চেয়ে বেশি কিছুরও প্রয়োজন হয় । জীবনটা যে তোমার ভাবনার মত সরল না । জীবনের হিসেব বড় জটিল । এই জীবনে আড্ডা একসময় শেষ হয় , গানের সুর একসময় থেমে যায় , কথায় গানে ভরপুর সময় শেষ হয়ে আসে , ঠোঁটের কোণে ঝুলিয়ে থাকা হাসিটা ধীরে ধীরে ম্লান হতে থাকে । আড্ডার বন্ধুরা তখন বিদায় নেয় । তবু একজন থেকে যায় তোমার পাশে , তোমার একাকীত্বের পাশে । তোমার হৃদয়ের অতল গভীরে , যেখানে আর কারও পৌঁছানোর সাধ্য নেই , সেখানে যার বাস ! মনে পরে তাকে ?
জানি তোমার কথা সবাই তো মুগ্ধ হয়ে শোনে । শুনে হাসে কেউ কেউ , কেউ কেউ মজা পায় । তাদের মজা দেখে তুমিও আনন্দ পাও । সে আনন্দে তাকে কি ভুলে গেলে , যে তোমার নীরবতাও স্পষ্ট শুনতে পায় ? সব কথা শেষে যে কথাগুলো না বলা থেকে যায় , তোমার সে সব কথাও যার জানা ? তোমার একাকী মন খারাপের ক্ষণে সে কি পাশে ছিলনা ? প্রবল হতাশা যখন তোমাকে অন্ধকারে ঠেলে দেয় , সে কি কোনদিন আশার বানী শোনায় নি ? সবাই চলে গেলে , সব আলো নিভে গেলে , জোনাকির মত সে কি পথ দেখায়নি ? হয়ত সে আলো বড় ক্ষীণ , অতি তুচ্ছ , তবু তোমার নিকশ আঁধার সে কি দূর করতে চেষ্টা করেনি তার ক্ষুদ্র ক্ষমতায় ? আর কেউ তো আসেনি ঝাড়বাতি নিয়ে ! প্রখর সূর্যতাপে যখন ক্লান্ত তুমি , ছায়া হয়ে সে কি ছিলনা ? নরম মখমলের গালিচা না হোক , শিতল পাটি হয়ে সে কি ছিলনা ? তোমার ভিতরে যে তোমার বসবাস , সেই তোমাকে তার চেয়ে বেশী করে কেউ কি চেনে ?
সবাই যখন মিষ্টি কথা দিয়ে তোমাকে ভোলাতে ব্যস্ত , সে কি বাস্তব সত্যটা তোমার সামনে তুলে ধরেনি ? হয়ত সে কথাগুলো তেঁতো ছিল । তোমার ভাল লাগেনি । তবু সে তো শুধু তোমার চোখে ভাল হতে চায়নি । তোমার চোখে খারাপ হয়েও তোমার ভাল করতে চেয়েছিল । সে যে তোমার আয়না হয়ে ছিল । বারবার তোমার সামনে তোমাকে তুলে ধরত , যাতে নিজের সত্তাকে তুমি ভুলে যেতে না পার ।
আড্ডার বন্ধুরা যখন চোখের আড়াল হয় , তখন তাদের আর কোন অস্তিত্ব থাকেনা । তোমার একান্ত অনুভূতি , দুঃখ সুখের সাথে তাদের যোগাযোগ থাকেনা । তবু একজন ছিল , তোমার কষ্ট তোমাকে ছোঁয়ার আগেই যার চোখ ভিজিয়ে দিত । তোমার আনন্দ তোমাকে ছোঁয়ার আগেই যার ঠোঁটে হাসি ফোটাত । তোমার জ্বরে যার কপাল পুড়ে যেত । তোমাকে খেতে দেখেই যার পেট ভরে যেত । সে ছাড়া আর কেউ কি ছিল এমন ? তোমার সমস্যা নিয়ে তোমার চেয়ে বেশী যার মাথা ব্যথা ছিল ? তোমাকে যে তোমার চেয়েও বেশী বুঝত ? তোমার প্রতিটি শিরা উপশিরা দিয়ে যে বহমান ছিল রক্তের মত ? সে ছিল আত্মার বন্ধু । তাকে তুমি চেননি । কোনদিন চিনবেওনা । এক পশলা বৃষ্টির মত ক্ষণিকের আনন্দে মশগুল তুমি , কি করে বুঝবে যে বাতাস প্রতি মুহূর্তে তুমি নিঃশব্দে গ্রহন করছ , তার মূল্য কত ?